নাটোরের নলডাঙ্গায় মন্দিরে আগুন এবং প্রতিমা ভাঙচুর করলো দুষ্কৃতীরা

বাংলাদেশের নাটোরের নলডাঙ্গায় সংখ্যালঘু হিন্দু সম্প্রদায়ের মন্দিরে আগুন দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রতিমাও ভাঙচুর করেছে দুষ্কৃতীরা। গত ১৮ই জুন, সোমবার রাত ২টার দিকে উপজেলার মোমিনপুর ঘোষপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় মন্দির কমিটির সভাপতি অজিত কুমার ঘোষ নলডাঙ্গা থানায় মামলা করেছেন। পুলিশ ও স্থানীয় লোকজন জানায়, উপজেলার মোমিনপুর ঘোষপাড়ায় ঘোষ সম্প্রদায়ের ৮-১০টি পরিবারের একটি পারিবারিক মন্দির অবস্থিত। মন্দিরের ভিতরে রক্ষিত বাঁশ ও পাটশলায় আগুন দিয়ে এবং একটি সরস্বতী প্রতিমা ভাঙচুর করে পালিয়ে যায় দুষ্কৃতীরা । স্থানীয়রা জল দিয়ে আগুন নিভিয়ে ফেলে। খবর পেয়ে ১৯ই জুন, মঙ্গলবার সকালে নলডাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও ইউএনও ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এ বিষয়ে নলডাঙ্গা থানার ওসি নুর হোসেন খন্দকার জানান, তদন্ত করে প্রকৃত অপরাধীদের খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে।

ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে ইউএনও রেজা হাসান জানান, ঘটনাটি দেখে মনে হয়েছে ঘোষ সম্প্রদায়ের মধ্যে আতঙ্ক ও ভীতি তৈরি করার জন্য এ ধরনের ঘটনা ঘটাতে পারে। ঘটনার সাথে জড়িতদের খুঁজে বের করার জন্য পুলিশ প্রশাসনকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত সপ্তাহে একই এলাকায় আদিবাসি সম্প্রদায়ের একটি মন্দির ভাঙচুর করা হয়েছিল।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s