বুদ্ধগয়ায় বিস্ফোরণে জড়িত আর এক জিহাদি গ্রেপ্তার মালদার ফরাক্কায়

বুদ্ধগয়ায় আইইডি বিস্ফোরণের ঘটনায় আরও এক জঙ্গিকে গ্রেপ্তার করা হল মালদা জেলার গুরুত্বপূর্ণ রেলস্টেশন ফরাক্কা থেকে। ধৃত আহম্মদ আলি ওরফে কালুর বাড়িতেই বিস্ফোরক তৈরির কারখানা চলছিল বলে কলকাতা পুলিশের স্পেশাল টাস্ক ফোর্সের (এসটিএফ) অফিসাররা জেনেছেন। সে নিজেই বুদ্ধগয়ায় গিয়েছিল বলে খবর। গতকাল ৫ই ফেব্রুয়ারী, সোমবার তার মুর্শিদাবাদে আসার কথা ছিল। সেইমতো স্টেশনে অপেক্ষা করছিলেন এসটিএফের অফিসাররা। ট্রেন থেকে নামামাত্রই তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। ধৃতের সঙ্গে কোন কোন জঙ্গির সম্পর্ক রয়েছে, তা জানার চেষ্টা হচ্ছে।

এসটিএফের হাতে ধৃত জেএমবি জঙ্গি পয়গম্বর শেখ ধরা পড়ার পরই উঠে আসে কালুর নাম। পয়গম্বর জেরায় পুলিশকে জানায়, কওসরের নির্দেশমতো কালুর বাড়িতেই আইইডি তৈরির কাজ চলছিল। সেখানে একদিকে হাতেকলমে বিস্ফোরক তৈরির প্রশিক্ষণ দেওয়া হত, অন্যদিকে চলতো আইইডি তৈরির কাজ। মূলত রোহিঙ্গারাই আইইডি তৈরি করত বলে খবর। বিস্ফোরক কত মাত্রায় মেশানো হবে, তারজন্য তৈরি করা হয়েছিল একটি আলাদা ল্যাবরেটরি। সেখানে বিস্ফোরক বিশেষজ্ঞরা হাজির থাকত। কালুর নিজেরও বিস্ফোরক তৈরির প্রশিক্ষণ ছিল। সে একাধিকবার বাংলাদেশে গিয়েছে বলে জেনেছেন অফিসাররা। মূলত সীমান্তের ওপার থেকে বিস্ফোরক তৈরির বিভিন্ন সামগ্রী সে নিয়ে আসত। তার মাধ্যমে বিভিন্ন জায়গায় আইইডি গিয়েছে। কালু পুলিশকে জানিয়েছে, বুদ্ধগয়ায় বিস্ফোরণের পরিকল্পনা করা হয় অন্তত মাস তিনেক আগে। তার বাড়িতে এই নিয়ে বৈঠক হয়। সেখানে জেএমবি’র অন্যতম মাথা সালাউদ্দিন সালেহ ও কওসর হাজির ছিল। সব কিছু চূড়ান্ত হওয়ার পর সংগঠনের ছ’-সাতজনকে দায়িত্ব দেওয়া হয়। ঘটনার আগে জেএমবি’র একটি টিম ঘুরে আসে বিহারে। পরে মূল টিমটি বুদ্ধগয়ায় গিয়ে বিস্ফোরণ ঘটায়। ওই দলে কালু ছিল বলে তদন্তকারী অফিসারদের বক্তব্য। পরে অন্যান্য জায়গাতে বিস্ফোরণের পরিকল্পনা ছিল। সে পুলিশকে জানিয়েছে, শুধু তার বাড়িই নয়, মুর্শিদাবাদের একাধিক জায়গায় আইইডি তৈরির কারখানা গড়ে উঠেছে। জেএমবি জঙ্গিরাই এই কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। বাংলাদেশ থেকে সীমান্ত পেরিয়ে এই সংগঠনের শীর্ষনেতারা প্রায়ই এখানে আসছে বলেও তার দাবি। তাদের কয়েকজনের নাম সে অফিসারদের জানিয়েছে। তার ভিত্তিতেই এই সমস্ত জেহাদিদের বিষয়ে খোঁজখবর শুরু হয়েছে।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s